Inqilab Logo

শনিবার, ২৪ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ১১ ফাল্গুন ১৪৩০, ১৩ শাবান সানি ১৪৪৫ হিজরী

এ সপ্তাহের কবিতা

.. | প্রকাশের সময় : ২৫ নভেম্বর, ২০১৬, ১২:০০ এএম

থামুন সুচি
ফাহিম ফিরোজ
আগে রক্ত চিনতো না অথচ এখন চেনে

বার্মার অরণ্য চুঁইয়ে এখন লাল সুতো
                       নাফনদে পাক খায়
চিতা হয় প্রতিদিন ঘর-ঘরান্তর। রোহিঙ্গা বিলাপ
এখন নোবেল কমিটিকে
                       এইখানে জামার কলার ধরে
                                 টেনে নিয়ে আসে
                                        অপাত্রে দিয়েছে কি যে!

একদিন চেয়ার ছিলো। নির্জন বান্ধব...
                  মিয়াভাই, সেই নরকেই তাকে
                                      ঢোকানো উচিত

মানুষ কী করে এত দ্রুত উল্টে-পাল্টে যায়
                           ভোলে বিষর্দ্র অতীত
সেই বিষ এখন কেমন ঢেলে দিচ্ছে সন্তানের মুখে
গলায় শেকল বেঁধে রাস্তায় টানতে টানতে প্রতিবাদকে
                      হত্যা করে রোজ। প্যাগোডাও দেখি মর্মাহত আজ
ভিডিও এসব চিৎ-কাৎ করে দেখায় সূর্যকে
                               সূর্যও ব্যথিত খুব
ভাইসাব, কী হবে ওটাকে দিয়ে বনান্তর ফোটাতে পারে না
                                                 কোনো ফুল
সে কেবল লাল বর্ণে খুশিÑ মধুপান মোটেই পছন্দ নয়
গানরাজের অমর সৃষ্টি থেকে তার কাছে আজ
                           ওজি গানই স্বর্ণের বার
দাদিমা, শোনো শোনো, এগুলো নিয়েই তার
               দিনগুলো একটির সঙ্গে আর একটি জড়িয়ে
                           লম্বা হতে থাকে কপালের ইতিহাসে
আর ঐ দিকে, ইয়াংগুনে চারদিক থেকে ফুটে আসে
                    কেমন বৈশ্বিক ঋতুর প্রবাহ...
২০.১১.২০১৬

মানুষলিপি
রেজাউল ইসলাম হাসু
মানুষের বিরুদ্ধে চ’লে গেছে মানুষজন্ম,
আজন্ম বেঁচে আছি আগুনের হাত ধ’রে;
আরক্তিম ঠোঁটে তবু গুঁজে দিই আমিকে,
মানুষের ব্যাকুলতাঢেউ বহুকাল ভেতরে!
ফিরতে পারিনি আদৌ মানুষের চোখ থেকে,
চোখের সমুদ্রে ডুবে কেবল আকাশের তালাশ;
হাতড়ে বেড়াই খ’সে পড়া সূর্যের পালক,
সেই তো আমার বিষাদ অথবা আনন্দঘাস!
হাড়গোড়ের আঁধার মুছে মানুষকে ধ’রে রাখো,
বিতর্ক ভেঙে এসো নিরক্তিম চুম্বনগাছে;
মানুষের বিরুদ্ধে জ্বলে উঠলে ঈশ্বরঈর্ষা,
প্রথাগত মানুষ, বলো যাবে কার কাছে?

রেঙ্গুন
দালান জাহান
মৃত্যু গৃহতলে আজ রক্তের ঢেউ
শিশুর বুকে মরণ-পিয়াসী ছুরি
কোথায় আছো দীন, ইমাম মেহেদী
নামিয়া আসো খোদার আরশ ছাড়ি।
উদ্বেলিত রেঙ্গুন ফেনিল সিঁদুর
দাজ্জালের বারুদ রক্তনদী নিশা
অগ্নিবৃষ্টিতে জ্বলছে জলমানুষ
অবিশ্বাসী জাল্ম জহরে জ্বালো সীসা।
কোথায় মানবতা? শান্ত রক্ত-আঁখি!
খালিদ বিন ওয়ালিদ, শ্রেষ্ঠ আলী
উদ্যত বজ্রযান বৈরী বিষের সঙ্গীন
শোকের অনলে কেটে কর ফালি ফালি।

অপেক্ষা...
খাদিজাতুল কোবরা লুবনা
ওখানে মেঘ, বৃষ্টি, বলাকা
এখানে জেগে আছে থোকা থোকা
শুভ্র কাশফুল।
মাটির উপর দাঁড়িয়ে
জোসনা ছুঁয়ে ছুঁয়ে যায়।
দিগন্তের এক কোণায় জীর্ণ কুটিরে
তুমি জেগে আছো প্রদীপ জ্বেলে।
অপেক্ষমান দু’টি ভয়ার্ত চোখ
কথা বলে যায় কাকে যেন
পাওয়ার আশায়।
হিমশীতল বাতাসে সাদা ফুলের
মিষ্টি গন্ধ মনে করিয়ে দেয়
পৃথিবীর বড় অবেলায় তুমি আসবে আবার
আঁধার ভেঙে ওই নীল আকাশে
সাদা মেঘের পুঞ্জে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: কবিতা

২১ অক্টোবর, ২০২২
২১ অক্টোবর, ২০২২
৩০ সেপ্টেম্বর, ২০২২
২৩ সেপ্টেম্বর, ২০২২
১৬ সেপ্টেম্বর, ২০২২
৯ সেপ্টেম্বর, ২০২২
২ সেপ্টেম্বর, ২০২২
২ সেপ্টেম্বর, ২০২২
১৯ আগস্ট, ২০২২
১৯ আগস্ট, ২০২২

আরও
আরও পড়ুন