Inqilab Logo

সোমবার, ১৫ জুলাই ২০২৪, ৩১ আষাঢ় ১৪৩১, ০৮ মুহাররম ১৪৪৬ হিজরী

চীনের দর্শনার্থীদের করোনা পরীক্ষা বাধ্যতামূলক করল যুক্তরাষ্ট্র

অনলাইন ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২৯ ডিসেম্বর, ২০২২, ১১:৪০ এএম

চীন থেকে আসা ব্যক্তিদের বাধ্যতামূলকভাবে করোনা পরীক্ষার নিয়ম জারি করেছে যুক্তরাষ্ট্র। এশিয়ার দেশ চীনে প্রাণঘাতী করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ বেড়ে যাওয়ায় এমন সিদ্ধান্ত নিয়েছে মার্কিন প্রশাসন। ফলে যেসব দর্শনার্থী চীন থেকে যুক্তরাষ্ট্রে আসবেন তাদের করোনা পরীক্ষা করে দেশটিতে প্রবেশ করতে হবে। খবর বিবিসির।
চীনে সংক্রমণ বাড়ার পর ভারত, জাপান, মালয়েশিয়া, তাইওয়ান কঠোর পদক্ষেপ নিয়েছে। এসব দেশের সঙ্গে যোগ দিল যুক্তরাষ্ট্র।
প্রায় তিন বছর কঠোর বিধিনিষেধ আরোপ করে রাখার পর সেগুলো শিথিল করে দিচ্ছে চীন। নতুন বছরের ৮ জানুয়ারি থেকে বলতে গেল পুরোপুরি স্বাভাবিক অবস্থায় ফিরে যাবে দেশটি। তবে চীন বিধিনিষেধ শিথিলের পর হু হু করে বাড়ছে সংক্রমণ। যা অন্য দেশগুলোকে চিন্তায় ফেলে দিয়েছে।
তবে চীনের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র ওয়াং ওয়েনবিন অভিযোগ করেছেন, পশ্চিমা দেশ ও মিডিয়াগুলো চীনের করোনা পরিস্থিতি নিয়ে অযথা বাড়াবাড়ি করছে। বৈজ্ঞানিক উপায়ে চীন পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে রাখার চেষ্টা করছে বলে জানিয়েছেন তিনি।
তবে যুক্তরাষ্ট্রের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে বলা হয়েছে, চীনে ছড়িয়ে পড়া ভাইরাস নিয়ন্ত্রণে কঠোর পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে। আগামী ৫ জানুয়ারি থেকে এটি কার্যকর হবে।
নতুন নিয়ম অনুযায়ী, চীন থেকে যারা যুক্তরাষ্ট্রে আসবেন তাদের সর্বোচ্চ দুইদিন আগে পরীক্ষা করতে হবে এবং নেগেটিভ ফলাফল দেখাতে হবে। ভ্রমণের ১০ দিন আগে যারা করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন বা হবেন তারা নেগেটিভ ফলাফলের বদলে করোনা থেকে সেরে ওঠার কাগজপত্র দেখিয়ে যুক্তরাষ্ট্রে আসতে পারবেন। তৃতীয় কোনো দেশের মাধ্যমে আসলেও করোনার পরীক্ষা করাতে হবে।
যুক্তরাষ্ট্রের পর যুক্তরাজ্য এবং ইউরোপীয় ইউনিয়নও চীনে ছড়িয়ে পড়া সংক্রমণ আটকাতে কঠোর পদক্ষেপ নেওয়ার চিন্তা-ভাবনা করছে। অবশ্য ইউরোপীয় ইউনিয়নভুক্ত দেশ ইতালি আগেভাগেই নিয়ম জারি করেছে, চীন থেকে যারাই আসবেন তাদের করোনার নেগেটিভ সনদ দেখাতে হবে। সূত্র: বিবিসি



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: চীন-যুক্তরাষ্ট্র


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ