Inqilab Logo

শুক্রবার, ১৪ জুন ২০২৪, ৩১ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১, ০৭ যিলহজ ১৪৪৫ হিজরী

‘জিনপিংয়ের অনেক সমস্যা’, বাইডেনের খোঁচায় ক্ষুব্ধ চীন

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ৯ ফেব্রুয়ারি, ২০২৩, ৬:৫৮ পিএম

গত নভেম্বরে জি২০ সম্মেলনের সময় বাইডেন ও জিনপিংকে কাছাকাছি আসতে দেখা গেলেও চীন ও আমেরিকার সম্পর্কে ফের অবনতি হয়েছে নতুন করে। কয়েকদিন আগেই মিসাইল দেগে চীনের ‘নজরদারি’ বেলুন ফাটিয়েছে আমেরিকা। এমন আচরণে বেজায় চটেছে চীন। এরই মধ্যে মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন সরাসরি জিনপিংকে খোঁচা মেরে দাবি করেছেন, চীনের প্রেসিডেন্টের অনেক সমস্যা রয়েছে।

ঠিক কী বলেছেন বাইডেন? তাকে বলতে শোনা গিয়েছে, ‘আপনারা কি এমন কোনও রাষ্ট্রনেতার কথা ভাবতে পারেন, যিনি জিনপিংয়ের সঙ্গে বাণিজ্য করতে চাইবেন? আমার তো কারও কথা মনে পড়ছে না।’ সেই সঙ্গেই তার দাবি, জিনপিংয়ের অনেক সমস্যা রয়েছে। তার মধ্যে অন্যতম হল অর্থনীতি। চীন যে এই মুহূর্তে আর্থিক সংকটে ভুগছে সেকথা মনে করিয়ে দেন বাইডেন।

স্বাভাবিক ভাবেই তার এমন খোঁচায় ক্ষুব্ধ বেইজিং। চীনের পররাষ্ট্রমন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র মাও নিং জানিয়েছেন, এই ধরনের বক্তব্য দায়িত্বজ্ঞানহীনতার পরিচয়। যা সাধারণ কূটনৈতিক শিষ্টাচারের পরিপন্থী।

গত কয়েক দিন ধরে উত্তর আমেরিকার আকাশে উড়ছিল চীনের বেলুন। পেন্টাগনের অভিযোগ ছিল, আমেরিকার সামরিক ঘাঁটি, অস্ত্রের উপর নজরদারি চালাচ্ছে বেইজিং। যদিও সেই দাবি উড়িয়ে চীনের বক্তব্য, নজরদারি নয়, আবহাওয়া ও বৈজ্ঞানিক তথ্য সংগ্রহের জন্য বেলুন ওড়ানো হয়েছিল। হাওয়ার গতির সঙ্গে পথ পরিবর্তন করে আমেরিকার আকাশে ঢুকে পড়ে বেলুনটি। মার্কিন এফ-২২ বিমান থেকে ক্ষেপণাস্ত্র ছুঁড়ে চীনা বেলুনটিকে নষ্ট করে আমেরিকা। দক্ষিণ ক্যারোলিনা উপকূলের কাছে আটলান্টিক সমুদ্রে পড়ে যায় বেলুনটি। এরপর থেকেই বিতর্ক তুঙ্গে উঠেছে। সূত্র: এপি।

 



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: চীন


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ