Inqilab Logo

মঙ্গলবার, ০৯ এপ্রিল ২০২৪, ২৬ চৈত্র ১৪৩০, ২৯ রমজান ১৪৪৫ হিজরী

নিরাপত্তা চেয়ে পাকিস্তানের প্রধান বিচারপতিকে চিঠি ইমরান খানের

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ৬ মার্চ, ২০২৩, ৬:৫৬ পিএম

যে কোনও মুহূর্তে নেমে আসতে পারে ঘাতকের ছুরি। এমনটাই আশঙ্কা করছেন পাকিস্তানের সাবেক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান। শুধু তাই নয়, নিরাপত্তা চেয়ে সুপ্রিম কোর্টের বিচারপতির কাছে চিঠি দিয়েছেন পাকিস্তান তেহরিক-ই-ইনসাফ দলের সুপ্রিমো।

নিরাপত্তা বাড়ানোর আরজি জানিয়ে দেশের প্রধান বিচারপতি উমর আতা বান্দিয়ালকে চিঠি দিয়েছেন বিতর্কের কেন্দ্রে থাকা ইমরান। ৯ মার্চ তোষাখানা মামলায় তাকে আদালতে হাজির করানো হতে পারে। ওই দিন ইমরানের প্রাণসংশয়ের আশঙ্কা করছে তার দল। সম্প্রতি পাকিস্তানের দৈনিক ‘দ্য এক্সপ্রেস ট্রিবিউন’-এর প্রতিবেদনে এই সমস্ত তথ্য উঠে এসেছে। চিঠিতে ইমরান নাকি জানিয়েছেন, গতবছর এপ্রিল মাসে তাকে ক্ষমতাচ্যুত করার পর থেকেই তাকে প্রাণে মেরে ফেলার চক্রান্ত শুরু হয়েছে। এই কাজের জন্য তিনি দায়ী করেছেন পাকিস্তানের বর্তমান প্রধানমন্ত্রী শাহবাজ শরিফ এবং অভ্যন্তরীণ মন্ত্রীকে।

উল্লেখ্য, গতবছর ইমরান খানের রাজনৈতিক দল পাকিস্তান তেহরিক-ই ইনসাফের ‘রিয়েল ফ্রিডম’ মিছিলে হামলা চালিয়েছিল বন্দুকবাজরা। হুড খোলা গাড়িতে ছিলেন দলের নেতা ইমরান। ওয়াজিরাবাদের জাফর আলি চকের কাছে আচমকাই গুলি চলে। পিটিআই প্রধানের গাড়ির লক্ষ্য করে এলোপাথাড়ি গুলি চালানো হয়। গুলিবিদ্ধ হন ইমরান।

এদিকে, রোববার দুপুরে ইমরানকে গ্রেপ্তার করতে তার বাড়িতে হাজির হয় বিশাল পুলিশ বাহিনী। কিন্তু প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রীর খোঁজ পায়নি তারা। এই ঘটনার পরেই নিজের বাড়ি থেকে সমর্থকদের উদ্দেশে বার্তা দেন ইমরান। তিনি বলেন, কোনওদিন কারোওর সামনে মাথা নত করেননি। ভবিষ্যতে দেশ ছেড়ে পালানোরও ইচ্ছা নেই তার। যদিও এ ভাষণের পরেই দেশের সমস্ত টিভি চ্যানেলে ইমরানের বক্তৃতার উপর নিষেধাজ্ঞা চাপায় পাকিস্তানের টিভি চ্যানেল নিয়ন্ত্রক সংস্থা।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ইমরান খান


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ