Inqilab Logo

রোববার, ২১ এপ্রিল ২০২৪, ০৮ বৈশাখ ১৪৩১, ১১ শাওয়াল ১৪৪৫ হিজরী

রাশিয়ার কাছে যুদ্ধের ক্ষতিপূরণ দাবির জাতিসঙ্ঘের প্রস্তাবে ভোট দেয়নি বাংলাদেশ

অনলাইন ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ৮ জানুয়ারি, ২০২৩, ৮:৪৯ এএম

রাশিয়াকে ইউক্রেনের যুদ্ধের ক্ষতিপূরণ দেয়ার জন্য আহ্বান জানিয়ে জাতিসঙ্ঘের সাধারণ পরিষদে একটি প্রস্তাব গৃহীত হয়েছে। রাষ্ট্রদূতরা সংঘাত বন্ধে নিবেদিত। এজন্য তারা তাদের জরুরি বিশেষ অধিবেশন পুনরায় শুরু করতে মিলিত হয়েছিল।

প্রায় ৫০টি দেশ ধ্বংস, ক্ষয়ক্ষতি এবং আঘাতের জন্য ক্ষতিপূরণের জন্য একটি আন্তর্জাতিক প্রক্রিয়া গঠনের পাশাপাশি প্রমাণ এবং দাবি নথিভুক্ত করতে একটি রেজ্যুলেশন তৈরিতে সহ-পৃষ্ঠপোষকতা করেছে।

সাধারণ পরিষদ হল জাতিসঙ্ঘের সবচেয়ে প্রতিনিধিত্বকারী সংস্থা, যেটি ১৯৩টি সদস্য রাষ্ট্র নিয়ে গঠিত।

৯৪টি দেশ প্রস্তাবের পক্ষে, ১৪টি বিপক্ষে ভোট দেয় এবং বাংলাদেশসহ ৭৩টি দেশ বিরত থাকে।

ভোট সকালে অনুষ্ঠিত হয়, এবং দেশগুলো তাদের সিদ্ধান্ত ব্যাখ্যা করতে বিকেলে ফিরে আসে।

মঙ্গলবার সন্ধ্যায় ঢাকায় রাশিয়ান দূতাবাস এক ফেসবুক পোস্টে বলেছে, জাতিসঙ্ঘের অর্ধেকের বেশি সদস্য পশ্চিমাদের দ্বারা প্রচারিত খসড়া প্রস্তাবকে সমর্থন করেননি।

বাংলাদেশকে ধন্যবাদও জানায় দূতাবাস।

ভোটের আগে বক্তৃতায়, রাশিয়ান রাষ্ট্রদূত ভ্যাসিলি নেবেনজিয়া খসড়া রেজ্যুলিউশনটিকে একটি সংকীর্ণ গোষ্ঠীর রাষ্ট্রের `একটি ক্লাসিক উদাহরণ’ হিসেবে চিহ্নিত করেছেন। যা আন্তর্জাতিক আইনের ভিত্তিতে নয়, বরং অবৈধ কিছুকে পবিত্র করার চেষ্টা করছে।`

তিনি বলেছিলেন যে রেজল্যুশনের সমর্থনকারী দেশগুলো সাধারণ পরিষদকে একটি বিচারিক সংস্থা হিসাবে স্থাপন করার চেষ্টা করছে, যা জাতিসঙ্ঘের তথ্যানুসারে আসলে যা নয় এটি।

রাশিয়ান ভাষায় তিনি বলেন, `এই দেশগুলো আইনের শাসনের প্রতি কতটা প্রতিশ্রুতিবদ্ধ তা নিয়ে গর্ব করে, কিন্তু একই সাথে তারা এর উপমাকে লঙ্ঘন করছে।`



 

Show all comments
  • Nazmul Hasan ৮ জানুয়ারি, ২০২৩, ৯:১৪ এএম says : 0
    রাশিয়ার কাছে ভোট দেই নাই। কারণ সরকার রাশিয়ার কাছে সুবিধা চাই
    Total Reply(0) Reply
  • Hasan ৮ জানুয়ারি, ২০২৩, ৯:১৭ এএম says : 0
    আ.লীগ সরকার সব কিছুর মধ্যে রাজনৈতিক সুবিধা চাই। এর ফলে যদি দেশের স্বার্থও যাই তাহলে তারা এতে কর্ণপাত করে না। কারণ তারা ক্ষমতা ধরে রাখতে চাই।
    Total Reply(0) Reply
  • জীবন চৌধুরী ১৬ জানুয়ারি, ২০২৩, ১০:১০ পিএম says : 0
    জাতি সংঘ উঠে পড়ে লেগেছে ক্ষতি পুরনের জন্য।এখানে ভোটাভোটি কেন?কেন কি কারণে এই ভোট গ্রহন।রাশিয়া যখন তার পাশ্ববর্তী দেশ কে বিভিন্ন ধরনের সহযোগীতা করে তখন কি জাতি সংঘ ভোটভোটি করেছিল,ইউক্রেন যখন বিভিন্ন দেশ অস্ত্র দিয়েছিল তখন কি ভোট গ্রহন করে ছিল।এসব প্রহসন বন্ধ করা হোক।ইউক্রেন এবং রাশিয়ার এসব মারপ্যাচে বিশ্বকে জড়ানো উচিত নয়।
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: বাংলাদেশ


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ