Inqilab Logo

বুধবার, ১৭ জুলাই ২০২৪, ২ শ্রাবন ১৪৩১, ১০ মুহাররম ১৪৪৬ হিজরী

পাকিস্তান হাইকমিশনে কায়েদ-ই-আজম মোহাম্মদ আলী জিন্নাহর প্রতিকৃতি উন্মোচন

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২ মার্চ, ২০২৩, ৪:৪২ পিএম | আপডেট : ৪:৪৩ পিএম, ২ মার্চ, ২০২৩

বাংলাদেশে নিযুক্ত পাকিস্তান হাইকমিশনার ইমরান আহমেদ সিদ্দিকী আজ চ্যান্সারিতে জাতির পিতা কায়েদ-ই-আজম মোহাম্মদ আলী জিন্নাহর একটি প্রতিকৃতি উন্মোচন করেন। ঢাকায় অবস্থানরত পাকিস্তানি সম্প্রদায় এ উপলক্ষে আয়োজিত অনুষ্ঠানে যোগ দেন । কায়েদ-ই-আজম মোহাম্মদ আলী জিন্নাহ এবং পাকিস্তান আন্দোলনের অন্যান্য নেতৃবৃন্দের আত্নত্যাগের প্রতি শ্রদ্ধা জানাতে এই অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।

অনুষ্ঠানে কায়েদে আজম মোহাম্মদ আলী জিন্নাহ, স্যার সৈয়দ আহমেদ খান, ড. আল্লামা মুহাম্মদ ইকবাল এবং এ কে ফজলুল হক সহ স্বাধীনতা আন্দোলনের অন্যান্য আইকনদের আত্নত্যাগ নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা করেন হাইকমিশনার সিদ্দিকী। তিনি এই নেতাবৃন্দের অসংখ্য ত্যাগের কথা তুলে ধরে বলেন, একটি স্বাধীন রাষ্ট্র গঠনের সংগ্রামে তারা অপ্রতিরোধ্য প্রতিকূলতার বিরুদ্ধে লড়াই করেন এবং অসংখ্য চ্যালেঞ্জের মুখোমুখি হন, যাতে সেখানে মানুষজন স্বাধীনভাবে তাদের স্বপ্ন এবং উচ্চাকাঙ্ক্ষা পূরণ করতে পারে।

হাইকমিশনার বলেন, ইতিহাস শিক্ষা দেয়, যে জাতি তাদের স্বাধীনতা সংগ্রামের চেতনাকে সমুন্নত রেখেছে, তারা তাদের উন্নয়নের লক্ষ্যমাত্রা অর্জনে সফল হয়েছে।আমরা সেই নেতাদের কাছে ঋণী, যারা বিদেশী আধিপত্য ও সংখ্যাগরিষ্ঠতাবাদীদের অত্যাচার থেকে মুক্তির জন্য অক্লান্ত লড়াই করেছেন। তিনি তরুণ প্রজন্মের কাছে প্রতিষ্ঠাতা-পিতাদের কর্মজীবন তুলে ধরার প্রয়োজনীয়তার উপর জোর দেন।

অনুষ্ঠানে উপস্থিত অতিথিবৃন্দ কায়েদ-ই-আজম মোহাম্মদ আলী জিন্নাহর প্রতিকৃতি স্থাপনকে বাংলাদেশের পাকিস্তানি সম্প্রদায়ের জন্য একটি গুরুত্বপূর্ণ মুহূর্ত জানিয়ে বলেন, এটি আমাদের প্রতিষ্ঠাতা-পিতাদের অবদানের স্মারক হিসেবে কাজ করবে। তারা পাকিস্তানের ইতিহাস ও সাংস্কৃতিক ঐতিহ্যের প্রচারে হাইকমিশনের প্রচেষ্টার জন্য কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ