Inqilab Logo

বৃহস্পতিবার, ২৩ মে ২০২৪, ০৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১, ১৪ জিলক্বদ ১৪৪৫ হিজরী

ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের কুমিল্লা

সংস্কার কাজে ভোগান্তি

সাদিক মামুন, কুমিল্লা থেকে : | প্রকাশের সময় : ২৯ সেপ্টেম্বর, ২০২২, ১২:৫৪ এএম

অংশে ২৫ কিলোমিটার যানজট
ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের কুমিল্লা অংশে সড়কের সংস্কার কাজের কারণে তীব্র যানজটের সৃষ্টি হয়েছে। গতকাল বুধবার সকাল থেকেই মহাসড়কের মেঘনা ও গোমতী সেতুর টোলপ্লাজা থেকে গৌরিপুর পর্যন্ত যানজট উঠানামা করছে। সকালে ঢাকামুখী লেনে প্রায় ২৫ কিলোমিটার যানজট সৃষ্টি হয়। বেলা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে কিছুটা কমলেও আবার বেড়ে যায়। এতে যানবাহনের যাত্রী, চালক ও জরুরি চিকিৎসার জন্য ঢাকা রওনা দেওয়া রোগীরা চরম দুর্ভোগে পড়েছেন।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের কুমিল্লার গৌরীপুর বাজারের কাছাকাছি অংশে সংস্কার কাজ চলছে। সংস্কার কাজ ২৪ ঘণ্টা চলমান থাকার কারণে মহাসড়কের ঢাকামুখী একটি লেনে গাড়ি চলতে পারে। এতে গাড়ির চাপ সৃষ্টি হলে মাধাইয়া এলাকা থেকে গৌরীপুর হয়ে দাউদকান্দি টোলপ্লাজা পর্যন্ত যানজট লেগে যায়।

লাকসামের মুদাফরগঞ্জ থেকে ঢাকার উদ্দেশ্যে ভোর ৬টার দিকে রওনা দিয়েছেন মোহাম্মদ সোহেল জানান, ৬ ঘণ্টায় গৌরিপুর বাজারে এসেছেন। দাউদকান্দি হাইওয়ে পুলিশের ওসি জাহাঙ্গীর আলম দুপুরে বলেন, যানজট আছে কিছুটা। আমাদের পুরো টিম মাঠে কাজ করছে। আমরা চেষ্টা করছি যানজট কমিয়ে আনার।
কুমিল্লার সড়ক ও জনপদ বিভাগের নির্বাহী প্রকৌশলী সুনীতি চাকমা বলেন, আমরা সংস্কার কাজ দ্রæত গতিতেই করছি। পূজার কারণে ঘরমুখো মানুষের চাপ বেশি। যানবাহনও বেশি। তাই যানজটে ভোগান্তি হচ্ছে। আমরা যানজট প্রবণ এলাকায় মাইকিং করছি। অলটারনেটিভ হিসেবে যেন কুমিল্লা-ব্রাহ্মণবাড়িয়ে হয়ে ঢাকা সড়ক ব্যবহার করার অনুরোধ করছি। তাছাড়া আমরা সবাইকে ঢাকা যাওয়ার জন্য সময় নিয়ে বের হওয়ার কথা বলছি।
সওজ বিভাগের এ কর্মকর্তা আরও বলেন, একটি অংশের কাজ শেষ করে ২৮ দিন কোন গাড়ি ওই অংশে আমরা চলাচল করতে দেই না। যাতে কাজটি মজবুত হয়। এই কারণে সময় বেশি লাগছে। আরও ৫ থেকে ৬ মাস সময় লাগতে পারে।

 



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ