Inqilab Logo

বৃহস্পতিবার , ৩০ মার্চ ২০২৩, ১৬ চৈত্র ১৪২৯, ০৭ রমজান ১৪৪৪ হিজরী

অমর্ত্য সেন নোবেল পাননি!

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২৮ জানুয়ারি, ২০২৩, ১২:০০ এএম

জমি বিতর্কের মাঝেই অমর্ত্য সেনের নোবেলপ্রাপ্তি নিয়ে বিরাট অভিযোগ তুললেন বিশ্বভারতীর ভিসি বিদ্যুৎ চক্রবর্তী। ‘লোকে ভুল বলে। অমর্ত্য সেন নোবেল পাননি।’ ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলাকে দেয়া টেলিফোনে একান্ত সাক্ষাৎকারে বিশ্ববরেণ্য অর্থনীতিবিদ সম্পর্কে বেনজির মন্তব্য করে তোলপাড় ফেলে দিয়েছেন ভিসি বিদ্যুৎ চক্রবর্তী। অর্থনীতিতে নোবেল পুরস্কার দেয়া হয়? সর্বপ্রথম নোবেল পুরস্কার দেওয়া চালু হয় কবে থেকে? কোন কোন বিষয়ে নোবেল পুরস্কার দেওয়ার কথা বলা আছে উইলে? নোবেল পুরস্কার নিয়ে এমনই বহু তথ্য তুলে ধরা হল এ প্রতিবেদনে।
বিশ্বভারতী বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষের ১৩ ডেসিমেল জায়গা অর্থনীতিবিদ অমর্ত্য সেন দখল করে রয়েছেন বলে অভিযোগ ভিসি বিদ্যুৎ চক্রবর্তীর। ইতোমধ্যেই জমি ফেরত চেয়ে বিশ্বভারতীর তরফে এ ব্যাপারে সরাসরি অমর্ত্য সেনের হাতেই চিঠি ধরানো হয়েছে। এর আগেও একাধিকবার ইস্যুটি চর্চায় এলেও দিন কয়েক আগেই এটি চরম মাত্রা পায়। এই প্রথম সরাসরি জমি ফেরত চেয়ে অমর্ত্য সেনের হাতেই চিঠি ধরায় বিশ্বভারতী বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ। তারপর থেকেই অমর্ত্য সেনের বিরুদ্ধে একের পর এক অভিযোগ তুলছেন বিদ্যুৎ চক্রবর্তী।
ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলাকে দেয়া টেলিফোনে একান্ত সাক্ষাৎকারে বিদ্যুৎ চক্রবর্তী বলেন, ‘আলফ্রেড নোবেল পাঁচটি বিষয়ে পুরস্কার দেওয়ার কথা উল্লেখ করে গিয়েছেন। চিকিৎসাশাস্ত্র, পদার্থবিদ্যা, রসায়ন, সাহিত্য এবং শান্তি। কেউ একটা এগ্রিমেন্ট করে গেলে পরে কিছু সংযুক্ত করা যায় না। ১৯৬৮ সালে সুইডেনের রিজার্ভ ব্যাঙ্ক জানায় যে, অর্থনীতিতে অবদানের জন্য পুরস্কার দিতে তারা টাকা দেবেন। এক্ষেত্রে লেখা হয় এক্সেলেন্স ইন ইকনমিক্স ইন মেমোরি অফ আলফ্রেড নোবেল। এ পুরস্কারের অর্থমূল্য নোবেল ফাউন্ডেশন দেয় না। এ টাকা দেয় সুইডেনের রিজার্ভ ব্যাঙ্ক। লোকে ভুল বলে।’
উল্লেখ্য, ১৯০১ সাল থেকে নোবেল পুরস্কার দেয়া শুরু হয়। পদার্থবিদ্যা, রসায়ন, চিকিৎসাশাস্ত্র ও সাহিত্য ও শান্তিতে অনবদ্য কীর্তির জন্য নোবেল পুরস্কার দেওয়া শুরু হয়। সুইডেনের রসায়নবিদ তথা শিল্পপতি আলফ্রেড নোবেলের উইল অনুযায়ী এ পুরস্কার দেয়া শুরু হয়। তবে ১৯০১ সালে প্রথম নোবেল পুরস্কার বিজয়ীদের নাম গোপন রাখা হয়েছিল। অর্থনীতিতে পুরস্কার প্রদান শুরু হয়েছে ১৯৬৯ সালে। আলফ্রেড নোবেল তার উইলে অর্থনীতির কথা উল্লেখ করেননি।
পরে এটি যুক্ত করা হয়। আলফ্রেড নোবেলের স্মৃতিতে অর্থনীতিতে বিশেষ পুরস্কার দেয়া শুরু হয়। এ পুরস্কারের আনুষ্ঠানিক নাম হয় ব্যাঙ্ক অফ সুইডেন প্রাইজ। ১৯৬৮ সাল থেকে সুইডেনের কেন্দ্রীয় ব্যাঙ্ক আলফ্রেড নোবেলের অর্থনৈতিক বিজ্ঞানে অবদানের কথা স্মরণে রেখে এ পুরস্কার দেয়া শুরু করে। সূত্র : ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ